কোনো প্রকার সফটওয়্যার ব্যবহার ছাড়াই উইন্ডোজ অ্যাক্টিভেশন প্রক্রিয়া

আজকে আমরা আপনাদের সামনে যে বিষয়টা নিয়ে আলোচনা করবো সেটা হলো কোনো ঝামেলা ছাড়া সম্পূর্ণ ফ্রি তে কিভাবে আপনার কম্পিউটারের উইন্ডোজ অ্যাক্টিভেশন করতে পারেন ।  মূলত আজকের এই পোস্ট থেকে আপনি উইন্ডোজ ৭, উইন্ডোজ ৮,উইন্ডোজ ৮.১,উইন্ডোজ ১০ একটিভ করার কৌশল সম্পর্কে জানতে পারবেন । মাত্র এই  একটি পোস্ট থেকে সব ধরণের উইন্ডোজ একটিভ করার কৌশল জানতে পারবেন ।  কোনো ধরণের সফটওয়ার ব্যবহার না করে কিভাবে ফ্রী তে উইন্ডোজ একটিভ করা যায় সেটাই এই পোস্টে দেখানো হয়েছে ।  

এখন আমি আপনাদের উইন্ডোজ ১০ একটিভ করার পক্রিয়া দেখাবো। 

উইন্ডোজ একটিভ না করলে কি কি সমস্যা হয় ? উইন্ডোজ একটিভ না করলে আপনি একাধিক সমস্যার সম্মুখীন হতে পারেন। উইন্ডোজ ৭ এর বেলায় তারা আপনাকে ১ মাস ফ্রি চালাতে দিবে তারপর  দেখতে পাবেন আপনার কম্পিউটারের স্ক্রিন কালো হয়ে  যাচ্ছে । আবার উইন্ডোজ ১০ একটিভ না করলে আপনার মনিটরের ডান পাশে নিচের দিকের কোণায় watermark এ লেখা থাকবে “ACTIVATE WINDOWS go to settings to activate windows ” । 

উইন্ডোজ অ্যাক্টিভেশন

উইন্ডোজ ১০ একটিভ না থাকলে  আপনি Personalize পরিবর্তন করতে পারবেন না।  Personalize সেটিংসে গেলে একটি লেখা দেখতে পাবেন You need to activate Windows before you can personalize your PC”

উইন্ডোজ অ্যাক্টিভেশন
উইন্ডোজ অ্যাক্টিভেশন

উইন্ডোজ অ্যাক্টিভেশন না করা থাকলে বিভিন্ন ধরণের সমস্যার সম্মুখীন হবেন সেটা তো আগেই  বলেছি । আপনার উইন্ডোজ একটিভ করা না থাকলে   আপনি Update & Security সেটিংসে দেখতে পাবেন নিচের লেখাটি show করছে ,

উইন্ডোজ অ্যাক্টিভেশন

চলুন এখন এই সমস্যার সমাধান করা যাক । এখন , আপনি কিছু স্টেপ ফলো করবেন ,

স্টেপ ১ : অবশ্যই আপনি উইন্ডোজের ডিফল্ট এন্টিভাইরাস অথবা অন্য কোনো এন্টিভাইরাস থাকলে সেটা অফ করে নিবেন।  যেমন উইন্ডোজ ১০ এর ডিফল্ট এন্টিভাইরাস realtime অফ করে দিতে হবে। নাহলে এন্টিভাইরাস এবং এক্টিভেশন সংঘর্ষ ঘটে।   সার্চ বারে “Virus & threat protection settings” লিখে সার্চ করুন তারপর Virus & threat protection settings এ প্রবেশ করুন। 

উইন্ডোজ অ্যাক্টিভেশন

তারপর “Manage settings” এ ঢুকবেন।

উইন্ডোজ অ্যাক্টিভেশন

আপনার স্ক্রিনে Real-time protection অন করা থাকলে সেটি আপনি অফ করে দিন।  

স্টেপ ২ : https://get.msguides.com/windows-10-8.1-8-7.txt এই লিংকে প্রবেশ করুন তারপর যতো টেক্সট দেখতে পাবেন সেগুলো কপি করুন।  

স্টেপ ৩ :  কপি করা টেক্সটগুলো একটি নিউ notepad  এ windows.cmd ফাইল নামে  সেভ করুন।  

স্টেপ ৪: সব শেষে আপনার সেভ করা ফাইলটিকে run as administrator ক্লিক করে run  করুন।  

স্টেপ ৫ : এখন আপনি কিছুসময় ধৈর্য ধরুন। 

অতপর আপনার উইন্ডোজ অ্যাক্টিভেশন হয়ে যাবে।  এবার আপনি চেক করে দেখুন উইন্ডোজ অ্যাক্টিভেশন হয়ে গেছে।  

উইন্ডোজ অ্যাক্টিভেশন

Leave a Reply

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।